অনুপ্রেরণা নিয়ে গবেষণার ফলাফল

প্রতিনিয়তই মানুষকে অনুপ্রেরণা দান করুন। হতে পারে আপনার অনুপ্রেরণায় একজন মানুষ নিজের জীবনকে নতুনভাবে শুরু করতে পারবে, হতাশা থেকে বেঁচে ফিরতে পারবে।

এমনও হতে পারে আপনার দেয়া অনুপ্রেরণা থেকে উজ্জীবিত হয়ে কেউ একজন নিজের জীবনকে সফল করে তুলতে সক্ষম হয়েছে। এটাই স্বাভাবিক।

তাই একজন মানুষের সফলতার পেছনে অবদান রাখার জন্য হলেও অনুপ্রেরণা দিন। এটা এমনকি সেসব মানুষের সাথে আপনার ভালো সম্পর্ক গড়ে তুলতে সাহায্য করবে।

তাছাড়া গবেষণাও বলছে বেশ গুরুত্বপূর্ণ কিছু ব্যাপার ঘটে থাকে, যখন একজন মানুষ অনুপ্রেরণা দেয়ার মতো সক্ষম থাকে। চলুন জেনে নেয়া যাক।

১। ইচ্ছাশক্তির দ্বারা মানসিক শক্তি অর্জনের বিষয়টি সাধারণ লোকের মাঝে বেশি দেখা যায় এবং অনুপ্রেরণাদানকারী লোক স্বাভাবিকভাবেই তাদের চেয়ে বেশি প্রতিভাবান হয়ে থাকে।

২। বেশিরভাগ মানসিক দুর্বলতা উপশমকারী লোক অন্য কোনো উপশমকারী শক্তির কাছে আত্মসমর্পণ করে না এবং নিজের চেয়েও বড় কোন সত্ত্বার ওপর সঁপে দেয় নিজেকে।

৩। মানসিকভাবে কাউকে অনুপ্রেরণা দিতে নির্দিষ্ট কোন পদ্ধতি ব্যবহার হয় না, যতক্ষণ উপশমকারী স্বয়ং রোগীকে সমর্থন দেয়।

৪। ইচ্ছাশক্তির দ্বারা মানসিক সমস্যা উপশম আসলে রোগ উপশমকারী সকল শক্তির সমষ্টি, যার ওষুধের মতো গুণাগুণ রয়েছে।

৫। একজন মানসিক অনুপ্রেরণা দানকারী ব্যক্তি সবচাইতে গুরুত্বপূর্ণ যে চিকিৎসা করতে পারে তা হলো- ট্রমায় থাকা রোগীর চিকিৎসা।

সূত্র- ইন্টারনেট

পুনঃলিখন- ত্বাইরান আবির
লেখক, অনুবাদক, কনটেন্ট রাইটার


Posted

in

by

Tags:

Comments

One response to “অনুপ্রেরণা নিয়ে গবেষণার ফলাফল”

  1. তামিমা Avatar
    তামিমা

    লিখাটা পড়ে দারুন লাগলো আবির ভাইয়া💜

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *